ইথিলা

কচি ঘাসের মতো

তাহার মাথার চুল যত

শরতের বাতাসে ঢেউ খেলে যায়

নদীর জলে কত শত।

 

কমলি লতার মতো

তাহার বাহু দুখান সুন্দর কতো

নড়িয়া উঠে, শিল্পির কারুকার্য।

 

চোখ দুটি তার  মনে হয় যেন

জলে ফোটা পদ্ম হেন

ফুটিয়া আছে সহস্র বছর ধরে

প্রকৃতির শোভা বর্ধন করে।

 

চাঁদের মতো মুখখানি তার

হাসিতে মুক্ত ঝরে

আহা এই ধরনী তরে।

 

দেহখানি তার সোনার বরন

হেলেদুলে যাগায় শিহরন

মনে হয় যেন

হাজার অপ্সরার সৌন্দর্যের সংমিশ্রন

বিশ্ব মানবতার মন করিবে হরন।

 

শিশির ভেজা নগ্ন পায়ে

একে যায় সে

ভালবাসার ছবি এ বসুধার গায়ে।

 

 

 

+1
0
  

বাংলায় মতামত দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না *

*


*

বাংলায় লেখার জন্য Phonetic এ ক্লিক করুন

Protected by WP Anti Spam